Breaking News

‘কেউ মেয়ের মাথা খাচ্ছে’, রানুর বিস্ফোরক মন্তব্য ঘিরে নয়া জল্পনা

সংবাদ সারাদিন, ওয়েবডেস্ক: এবার সোজাসুজি মা-মেয়ের তরজা৷ মেয়ে সাথীর মন্তব্য নিয়ে মুখ খুললেন রানু মারিয়া মণ্ডল৷ রাখঢাক না করে একেবারে স্পষ্টভাষায় বললেন, “সাথীর মাথাটা কেউ খাচ্ছে!” আর রানুর এই বিস্ফোরক মন্তব্যকে ঘিরেই শুরু হয়েছে নয়া জল্পনা৷

দিন দুয়েক আগেই অতীন্দ্র এবং রানাঘাটের আমরা সবাই শয়তান ক্লাবের সদস্যদের বিরুদ্ধে টাকা সরানোর অভিযোগ এনেছিলেন রানু মণ্ডলের মেয়ে এলিজাবেথ সাথী রায়৷ এমনকী, রানুর সঙ্গে যোগাযোগ করলে পা ভেঙে দেওয়ার হুমকিও নাকি দেওয়া হয়েছে তাঁকে, বলেছিলেন রানুর মেয়ে সাথী৷ তাই মায়ের কাছ থেকে দূরে সরে গিয়ে নিজে অসহায় বোধ করছেন তিনি৷ এও বলেছিলেন যে অতীন্দ্র ও তপন নামে ক্লাবের ওই দুই সদস্য নিজের ছেলের মতো আচরণ করছেন৷ ওঁরা খ্যাতি চায়, তাই রানুকে ব্যবহার করছেন, এমন যাবতীয় কথা শোনা গিয়েছিল রানুর মেয়ে সাথীর মুখ থেকে৷ এমনকী, শুধুমাত্র কয়েকটা নাইটি ও সুটকেস কিনে দেওয়ার নাম করে রানুর ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে হাজার দশেক টাকা সরিয়ে নেওয়ার অভিযোগ এনেছিলেন সাথী৷ যেসব কথা প্রকাশ্যে আসতেই সরগরম হয়ে গিয়েছিল নেটদুনিয়া৷ এবার মেয়ে সাথীর বিরুদ্ধে মুখ খুললেন ‘মা’ রানু৷ “সাথীর মাথাটা কেউ খাচ্ছে”, এমন বিস্ফোরক মন্তব্যই করে বসলেন রানু৷

পাশাপাশি রানু এদিন আরও বলেন, “মনে হয় কোনও ভুল বোঝাবুঝি হচ্ছে। কিংবা কেউ সাথীর মগজধোলাই করছে। অতীন্দ্র এবং তপন দু’জনেই আমার খুব খেয়াল রাখে। আমি সত্যিই জানতাম না যে, সাথীকে কেউ হুমকি দিয়েছে।” “একজন শিল্পী হিসেবে টাকাটাই কিন্তু আমার কাছে সব নয়। গান গাওয়ার জন্য যে একটা সুযোগ পেয়েছি, এর থেকে আর বড় কথা কীই বা হতে পারে! তবে বাঁচতে গেলে খাবার দরকার, দরকার ঠিকঠাক কাপড়জামা, মাথা গোঁজার একটা ঠাঁইও তো দরকার!” এমন কথাও শোনা যায় রানুর মুখে।

তা অতীন্দ্র-তপনের টাকা সরিয়ে নেওয়ার অভিযোগ কি সত্যিই? রানুর সাফ উত্তর, “হ্যাঁ! এটা ঠিকই যে ওরা আমার কাছ থেকে ১০ হাজার টাকা নিয়েছে। কিন্তু সেই টাকা দিয়ে আমার সবকিছু কিনে দিয়েছে ওরা। পোশাক থেকে শুরু করে যাবতীয় যা যা দরকার একটা মানুষের।”

উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগেই বলিউডের জনপ্রিয় সংগীতকার হিমেশের সঙ্গে ৩ নম্বর গানের রেকর্ডিং সেরেছেন। গণমাধ্যমগুলিতেও বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ার সুরসম্রাজ্ঞী কদর বেশ। প্রায় প্রতিদিনই কোনও না কারণে শিরোনামে তিনি। তাঁর ব্যক্তিগত জীবন নিয়েও সমালোচনা-পর্যালোচনার অন্ত নেই। প্রশ্ন উঠেছে রানু তুমি কার? রানুর মেয়ে এলিজাবেথ সাথী রায় একদিকে যখন দুষছেন রানাঘাটের আমরা সবাই শয়তান ক্লাবকে। ক্লাবের সদস্য অতীন্দ্র ও তপনের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছেন টাকা সরানোর। অন্যদিকে, মুম্বই থেকে একটি ভিডিও পোস্ট করে সাথীর যাবতীয় অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে পালটা দিয়েছেন অতীন্দ্রও।(তথ্য সৌজন্যে: প্রতিদিন)

error: Content is protected !!