Breaking News

মাত্র ৪৫ মিনিটে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ঋণ! লকডাউনে গ্রাহকদের জন্য দুর্দান্ত অফার SBI-এর

সংবাদ সারাদিন, ওয়েবডেস্ক: দেশজুড়ে লকডাউনের জেরে বড়সড় ধাক্কা খেয়েছে অর্থনীতি। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই অবস্থায় আর্থিক বৃদ্ধির হার চাঙ্গা করার সবচেয়ে কার্যকরী উপায় হল বাজারে নগদের জোগান দেওয়া। সেই লক্ষ্যে এবার গ্রাহকদের জন্য দুর্দান্ত ঋণের অফার আনল দেশের বৃহত্তম রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক SBI।

লকডাউন এবং পরবর্তী সময়ে গ্রাহকদের জন্য জরুরীকালীন ঋণের ব্যবস্থা করল স্টেট ব্যাঙ্ক। ‘SBI Emergency Loan Scheme’নামের প্রকল্পের অধীনে এই মাত্র ৪৫ মিনিটে গ্রাহকদের ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত পার্সোনাল লোন দেওয়া হবে বলে দাবি ব্যাঙ্কটির। সবচেয়ে বড় বিষয় হল, অন্যান্য পার্সোনাল লোনের তুলনায় এর সুদও কম। এই প্রকল্পের অধীনে ঋণ নিলে সুদ দিতে হবে ১০.৫ শতাংশ।

কীভাবে পাওয়া যাবে এই ঋণ?
এই ঋণ পাওয়ার প্রাথমিক শর্ত হল আবেদনকারীকে স্টেট ব্যাঙ্কের গ্রাহক হতে হবে। অর্থাৎ, SBI-তে আবেদনকারীর সেভিংস অ্যাকাউন্ট থাকতেই হবে। সেই সেভিংস অ্যাকাউন্টের লেনদেনের পরিমাণ দেখে ব্যাংক ঠিক করবে আবেদনকারী আদৌ ঋণ পাওয়ার যোগ্য কিনা। আর যোগ্য হল তিনি কত ঋণ পেতে পারেন। সেটা জানতে হলে ‘PAPL and four last digits of SBI account number’ লিখে ৫৬৭৬৭৬ নম্বরে এসএমএস করতে হবে। তারপরই ব্যাঙ্ক জানিয়ে দেবে আপনি কত টাকা ঋণ পেতে পারেন। এরপর আপনাকে YONO SBI অ্যাপটি ডাউনলোড করতে হবে। সেখানে কাঙ্ক্ষিত ঋণের পরিমাণ এবং মেয়াদ লিখতে হবে। আপনি যদি সেই পরিমাণ ঋণ পাওয়ার যোগ্য হোন তাহলে আপনার মোবাইলে একটি ওয়ান টাইম পাসওয়ার্ড আসবে। ওই ওটিপিটি সাবমিট করলেই আপনার সেভিংস অ্যাকাউন্টে ঋণের টাকা ঢুকিয়ে দেবে ব্যাঙ্ক।

এত গেল নতুন ঋণের অফার। লকডাউনের জেরে পুরনো ঋণেও সুদ কমিয়েছে ব্যাংক। বৃহস্পতিবার এক বিবৃতি দিয়ে পুরাতন হোম লোন বা কার লোনের ক্ষেত্রে সুদ ১৫ বেসিস পয়েন্ট কমিয়ে দিয়েছে দেশের বৃহত্তম ব্যাঙ্কটি। (তথ্য সৌজন্যে : প্রতিদিন)