Breaking News

অনলাইন পদ্ধতিতে ক্লাস, রায়গঞ্জে রেজাল্ট প্রদান এবং নতুন শিক্ষা বর্ষের পাঠ্যপুস্তক বিলি

সংবাদ সারাদিন, রায়গঞ্জ: ভয়াবহ করোনা ভাইরাসের জন্য ২০২০ শিক্ষাবর্ষের পঠন পাঠন স্বাভাবিক নিয়মে বন্ধ হয়ে যায় ৷ রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় মহাশয় সে সময় নির্দেশ দেন প্রতিটি বিদ্যালয়ে বাংলা শিক্ষা পোর্টালে অ্যাক্টিভিটি টাস্কের মাধ্যমে অনলাইন ক্লাস হবে ৷

সেই নির্দেশ মত রায়গঞ্জ গার্লস প্রাথমিক বিদ্যালয় Whats App এ প্রাক প্রাথমিক থেকে চতুর্থ শ্রেণি পর্যন্ত পাঁচটি ক্লাসের গ্রুপ তৈরি করা হয় অভিভাবকদের ফোন নম্বর নিয়ে সেই গ্রুপগুলিতেই নিয়মত পঠন পাঠনের পাশাপাশি ৩ টি পর্বের পরীক্ষাও হয়েছে ৷ যে সকল অভিভাবকদের অ্যানড্রয়েড ফোন নেই তাদের শিশুদের ফোনে শিশুর সঙ্গে কথা বলে অথবা বাড়ি বাড়ি গিয়ে পঠন পাঠন ও পরীক্ষার ব্যবস্থা হয়েছিল ৷ শেষ পর্বের পরীক্ষা ডিসেম্বর মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে সম্পন্ন করার পর আজ শিশুর অভিভাবকদের ডেকে রেজাল্ট তুলে দেওয়া হয় ৷ আজকে গার্লস প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এসে রেজাল্ট প্রদান এবং নতুন শিক্ষা বর্ষের পাঠ্যপুস্তক তুলে দেবার অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শক দিপক চন্দ্র ভক্ত এবং জেলা মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিদর্শক নিতাই চন্দ্র দাস মহাশয় ৷

প্রাথমিক ও মাধ্যমিক দুই ডি আই সাহেব অভিভাবকদের ও শিক্ষক শিক্ষিকাদের বিদ্যালয়ের পঠন পাঠন বিষয়ে বিভিন্ন গুরুত্ব পূর্ণ পরামর্শ ও মতামত তুলে ধরেন ৷ পিছিয়ে পড়া ছাত্র ছাত্রীদের জন্য রিমেডিয়াল ক্লাস করানোরও পরামর্শ দেন ৷ তাছাড়াও তাঁরা বলেন যেহেতু জেলাতে একটিই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় অনলাইন ক্লাসকে সারাবছর চালিয়ে গেছে তাই আগামী দিনে আরও বেশি করে বিদ্যালয়গুলিকে এই বিষয়ে উদ্যোগ নিতে হবে ৷ গার্লস প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত শিক্ষক গৌরাঙ্গ চৌহান বলেন পরিদর্শক মাহশয়দ্বয়ের পরামর্শ মত বিদ্যালয় চলবে তাছাড়াও আমাগী দিনে আমরা ডিজিটাল লার্নিং ক্লাস ও রিমেডিয়াল ক্লাসও স্কুলে শুরু করব এবং যতদিন স্কুল স্বাভাবিক নিয়মে খুলছে না ততদিন ২০২১ শিক্ষাবর্ষেরও শিশুদের ক্লাস জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহ থেকেই অনলাইনে শুরু হয়ে যাবে ৷

২০২০ শিক্ষাবর্ষের মত ২০২১ শিক্ষা বর্ষের অনলাইন পঠন পাঠনের দায়িত্বে থাকবেন প্রাক প্রাথমিকে চৈতালি মৈত্র, মধুমিতা ঘোষ ৷ প্রথম শ্রেণির দায়িত্বে থাকবেন কৃতি মল্লিক , গিতা রায় ও রুনুপা বিশ্বাস ৷ দ্বিতীয় শ্রেণীর দায়িত্বে লোটন রায় ও সবুজ সেন ৷ তৃতীয় শ্রেণীর দায়িত্বে স্বপ্না বর্মন ও সুব্রতা ভট্টাচার্য ৷ চতুর্থ শ্রেণির দায়িত্বে রিমা মুখার্জী ও তমালি সাহা ৷ কম্পিউটার ডিজিটাল ক্লাস ও রিমেডিয়াল ক্লাস গৌরাঙ্গ চৌহান , আব্দুল খালেক ৷ তাছাড়াও সারাবছর নিয়মিত ক্লাস চালিয়ে যাওয়ার জন্য অভিভাবকগণ সকল শিক্ষক শিক্ষিকাগনকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন ৷ তাছাড়াও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী মহাশয়ার নতুন বছরের ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবক অভিভাবিকাদের জন্য গ্রিটিংস কার্ডও তুলে দেওয়া হচ্ছে বিদ্যালয় থেকে ৷