Breaking News

হারানোর দু’ঘণ্টার মধ্যে দম্পতির সোনার ব্যাগ উদ্ধার করল বালুরঘাট থানার পুলিশ

সংবাদ সারাদিন,বালুরঘাট: হারিয়ে যাওয়ার দু’ঘণ্টার মধ্যেই সোনা ও রুপার গয়না সহ মোবাইলের ব্যাগ উদ্ধার করল বালুরঘাট থানার পুলিশ। এরপর উদ্ধার করা সামগ্রী বৃহস্পতিবার বালুরঘাট থানা থেকে তুলে দেওয়া হয় দম্পতির হাতে। জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে এক দম্পতি ট্রেনে করে বালুরঘাটে আসেন। স্টেশনে নেমে গন্তব্যস্থলে যাওয়ার পথে বালুরঘাটে এক অটোতে সেই ব্যাগটি ছাড়া পরে যায়। এরপর বালুরঘাট থানায় দ্বারস্থ হন ওই দম্পতি। বালুরঘাট থানার পুলিশ তড়িঘড়ি তদন্ত শুরু করে মোবাইলের লোকেশন ট্রাক করে সেই হারিয়ে যাওয়া ব্যক্তির সামগ্রী উদ্ধার করে পুলিশ। দু’ঘণ্টার মধ্যে সেই ব্যাগ হাতে পেয়ে খুশিতে কান্নায় ভেঙে পড়েন ওই দম্পতি। বালুরঘাট থানার পুলিসকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, হারিয়ে যাওয়া ওই ব্যাগে প্রায় তিন ভরি সোনা ও রুপার গয়না। এছাড়াও প্রায় দেড় হাজার টাকা ছিল। সে ব্যাগটি অটো থেকে নামার সময় ছাড়া পড়ে যায়। এরপর ওই ব্যাগটি অন্য এক মহিলা নিয়ে বাড়ি চলে যায়। এদিকে বালুরঘাট থানার পুলিশ বিষয়টি জানতেই মোবাইলের লোকেশন ট্র্যাক করে বালুরঘাটের মাহিনগর এলাকায় সেই মহিলার বাপের বাড়ি থেকে ওই ব্যাগটি উদ্ধার করে নিয়ে আসে। প্রসঙ্গত, দুর্গেশ মন্ডলের বাড়ি মুর্শিদাবাদ জেলার সুতি থানা এলাকায়। তার স্ত্রী মামনি মন্ডল এর বাড়ি দক্ষিণ দিনাজপুর হিলি এলাকায়। স্ত্রীর বাপের বাড়িতে ফিরতে গিয়ে এই ধরনের ঘটনা ঘটে।

এবিষয়ে জেলা পুলিশ সুপার রাহুল দে বলেন, এদিন সকালে ওই দম্পতির কাছ থেকে ব্যাগ হারিয়ে যায়। বালুরঘাট থানার পুলিশ তদন্ত শুরু করে। এই ধরনের ঘটনায় দ্রুত অ্যাকশন নেওয়া হয়। সে ক্ষেত্রে বালুরঘাট থানার পুলিশ ভালো কাজ করেছে। দুই ঘণ্টার মধ্যেই ওই সামগ্রী উদ্ধার করেছে। এবং তা তুলে দেওয়া হয়েছে।

এবিষয়ে দুর্গেশ মন্ডল বলেন, আমি আমার স্ত্রীকে নিয়ে মুর্শিদাবাদ থেকে বালুরঘাটে শ্বশুর বাড়িতে যাচ্ছিলাম। সেই সময় অটোতে সেই ব্যাগ হারিয়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গে বালুরঘাট থানায় জানাই। এরপর পুলিশ দুই ঘণ্টার মধ্যেই ব্যাগটি উদ্ধার করে নিয়ে আসে। তার জন্য বালুরঘাট থানার পুলিশকে ধন্যবাদ জানাই।